সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকা ২০২৩ কে আছে তা জানুন! 

সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকা আসলে একটি বিতর্কিত বিষয় এবং বিভিন্ন বিশেষজ্ঞ ও ফুটবল ভক্তদের মধ্যে সব সময়েই সর্বকালের সেরা ফুটবলারের কে এমন হাজাররো প্রশ্ন জট খাই । আর এই ধরনের তালিকা প্রকাশ করা হয় একজন খেলোয়ারের নানা দিক বিচার বিশ্লেষন করে। এরই ধারাবাহিকতায় আজকে আমরা জানবো সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকা সম্পর্কে এবং কি কারনের তাদের এই মর্যাদের আসনে নিয়ে আসা হয়ে থাকে সেই সম্পর্কেও।

সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকা ২০২৩!

ক্রমিক নং

নাম

লিওনেল মেসি (Lionel Messi)

ক্রিস্টিয়ানো রোলানদো Cristiano Ronaldo

পেলে  (Pelé )

ডিয়েগো ম্যারাডোনা Diego Maradona

জিনেদিন জিদান  Zinedine Zidane

রোলানদিনহো Ronaldinho

ইয়োহান ক্রুইফ Johan Cruyff

গ্যারিঞ্চা Garrincha

আলফ্রেদো দি স্তেফানো Alfredo Di Stéfano

১০

মিশেল প্লাতিনি Michel Platini

সর্বকালের সেরা ফুটবলার লিওনেল মেসি !

সর্বকালের সেরা স্ট্রাইকার কে বা সর্বকালের সেরা খেলোয়াড় কে এই প্রশ্ন যদি কারো মনে জাগ্রত হয় তাইলে অবশ্যই লিওনেল মেসির নামটা চলে আসে । ২০২৩ সাল অব্দি যদি হিসাব করা যায় তাইলে লিওনেল মেসি কে সর্বকালের সেরা ফুটবলার হিসাবে অবশ্যই বিবেচনা করা হয় । লিওনেল মেসি ২৪শে জুন ১৯৮৭ সালে আর্জেন্টিনার শহর রোসিরিওতে জন্মগ্রহন করেন, এই বিশ্ব সেরা আর্জেন্টাইন ফুটবল জাদুকর । তার প্রকিত নাম লিওনেল আন্দ্রেস মেসি। মেসি ছোট বেলা থেকেই ফুটবল খেলতেন এবং ফুটবলে তার প্রতিভা খুব দ্রুতই বিশ্বের কাছে লক্ষনীয় হয়ে ওঠে । মাত্র ১০ বছর বয়সে মেসি বহুল জনপ্রিয় ক্লাব বার্সোনার মাধ্যমে সুচনা হয় । সর্বপ্রথম লিওনেল মেসি দেশের হয়ে আর্জেন্টিনা জার্সিতে খেলেন ২০০৫ সালের ১৭ আগস্টে হাঙ্গেরির সাথে । এবং সেই খেয়াই আর্জেন্টিনা ফুটবল দল হাঙ্গেরির সাথে ২-১ গোলের ব্যাবধানে জয় লাভ করেন। তার পর থেকে এখন পর্যন্ত আর্জেন্টাইন এই ফুটবল তারকা আর্জেন্টিনার হয়ে ১৭৬ টি আর্ন্তজাতিক ম্যাচ সম্পূর্ণ করেছে যার মধ্যে গোল করেছেন বা গোল সংগ্রহ করেছেন ১০৪টি। 

এখন পর্যন্ত আর্জেন্টাইন এই ফুটবলার তার ফুটবল ক্যারিয়ারে জাতীয় দল ও ক্লাব মিলে হাজারের উপরে ম্যাচ খেলাছেন। লিওনেল মেসি এখন অব্দি ১০৬২ এ অংশগ্রহন করেছেন বা খেলেছেন এবং এরই সাথে নিজ ক্যারিয়ারে গোল যোগ করেছেন ৮২৫ টি। লিওনেল মেসির ফুটবল জীবনের যাত্রা শুরু করেন ইউরোপিয়ান জনপ্রিয় ফুটবল ক্লাব বার্সোলনার হাত ধরে। বার্সোলনা ক্লাবে মেসি তার ক্যারিয়ারে অসংখ্য টুর্নামেন্ট এ অংশগ্রহন করেছেন। তিনি ২০০৫ সাল থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত সর্বোমোট ৭৭৮ টি ম্যাচ খেলেছেন এবং গোল করেছেন ৬৭২ টি। বর্তমানে মেসি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মেজর লিগ সকার ক্লাব ইন্টার মায়ামির হয়ে খেলেন। এর আগে এই আর্জেন্টাইন ফুটবলার খেলেছে ফ্রান্সের জনপ্রিয় ফুটবল ক্লাব পিএসজি তে । সেখানে সেমি মোট ৭৫ টি মাচ খেলে এবং গোল করে ৩২ টি । মেসি আর্জেন্টিনার হয়ে ৭ টি ব্যালেন ডি ( ২০০৯, ২০১০, ২০১১, ২০১২, ২০১৫, ২০১৯ এবং ২০২১ এর জয়লাভ করেছে । এছাড়াও মেসি ৭টি ইউরোপীয় গোল্ডেন বুট, ১০ টি শীরোপা ৪ টি চ্যাম্পিয়ান লিগ শিরোপা এবং১ টি ফিফা বিশ্বকাপ শিরোপা জিতেছে। 

ফুটবলের এমন সব নৈপুন্যতাই কারনেই লিওনেল মেসিকে সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকায় রাখা হয়েছে। এসব দিক বিবেচনা করে মেসি কে বিশ্বের সেরা খেলোয়ারের ১ স্থানে রাখা হয়েছে ।

বিশ্বকাপে মেসির গোল সংখ্যা !

লিওনেল মেসি এ পর্যন্ত ৫ টি বিশ্বকাপ খেলেছে ,তিনি প্রথম বিশবকাপ খেলে ২০০৬ সালে । সর্বশেষ তথ্য মতে ২০২৩ সালের ১০ই অক্টোবর পর্যন্ত মেসির বিশ্বকাপে গোল সংখ্যা ছিল ১৩ টি । এর মধ্যে শুধু মাত্র ২০২২ কাতার বিশ্বকাপে মেসি ৭ টি গোল করে ফুটবল ইতিহারে একটি নতুন রেকর্ড করে । ২০০৬ সালে প্রথম বিশ্বকাপে মেসি ৩ ম্যাচ খেলে গোল করেন ৩ টি। সেই বছর আর্জেন্টিনা জাতীয় ফুটবল দল বিশ্বের ৬ তম অবস্থানে যেতে সক্ষম হয়। দুর্ভাগ্য বসত ২০১০ সালের বিশ্বকাপে খেলতে নেমে আর্জেন্টিনার হয়ে মোট ৫ ম্যাচ খেলা কিন্তু কোন গোল করতে পারেন নাই এই তারকা । তার পরেও সেই বছর আর্জেন্টিনা দল ৫ম স্থানে আসতে সক্ষম হয় । এর পরের বিশ্বকাপ থেকে মেসির চমক দেখানো আবার ও শুরু হয় । ২০১৪ সালে ব্রাজিল বিশ্বকাপে মেসি আর্জেন্টিনার হয়ে মোট ৭টি ম্যাচ খেলে এবং এই ৭ ম্যাচে ৪টি গোল করে আর্জেন্টিয়া দল কে সর্বোচ্চ স্থানে নিয়ে যায়। এবং সেই বছর বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনা দল ফাইনাল খেলে এবং রার্নাস আপ হয় । 

পরবর্তীতে ২০১৮ সালের রাশিয়া বিশ্বকাপের আসরে আর্জেন্টিনার হয়ে মেসি ৪ ম্যাচ খেলে এবং গোল করেন ১ টি, সে বছর আর্জেন্টিনা দল এর অবস্থান হয় ১৬ তম । সর্ব্বশেষ ২০২২ সালের কাতার বিশ্বকাপের আসরে আর্জেন্টিনার নতুন ইতিহাসের সুচনা হয়ে এই ফুটবল তারকার হাত ধরেই । কাতার বিশ্বকাপে মেসি নিজে দলের হয়ে ৭ টি ম্যাচ খেলার সুযোগ পায় এবং ৭ ম্যাচে সাফল্যর সাথে ৭ টি গোল করে সেই সাথে আর্জেন্টিনার হয়ে বিশ্বকাপ জয়ের গৌরব অর্জন করেন। সার্বিক দিক থেকে বিচার বিশ্লেষন করেই লিওনেল মেসি কে সর্বকালের সেরা ফুটবলার বল হয়ে থাকে।

সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকায় মেসির সাফল্য:

ক্রমিক নং বিশ্বকাপ  ম্যাচ সংখা  গোল  অবস্থান

২০০৬ সাল জার্মান বিশ্বকাপ 

৩টি ১টি ৬ তম স্থান

২০১০ সাউথ আফ্রিকা বিশ্বকাপ 

৫ টি ০ টি ৫ম

২০১৪ সাল ব্রাজিল বিশ্বকাপ 

৭ টি

৪টি

রার্নাস আপ

২০১৮ সাল রাশিয়া বিশ্বকাপ 

৪ টি

১টি

১৮ তম

২০২২ সাল কাতার বিশ্বকাপ

৭  টি

৭টি

চ্যাম্পিয়ান বা জয়ী
মোট বিশ্বকাপ =৫

ম্যাচ=২৬টি

১৩টি

১বার চ্যাম্পিয়ান 

সর্বকালের সেরা ফুটবলার ক্রিস্টিয়ানো রোলানদো !

সর্বকালের সেরা খেলোয়াড় কে বা সর্বকালের সেরা স্ট্রাইকার কে এই প্রশ্ন যদি কারো মনে জাগ্রত হয় তাইলে অবশ্যই ক্রিস্টিয়ানো রোলানদো নামটা চলে আসে । ক্রিস্টিয়ানো রোলানদো ১৯৮৫ সালের ফেব্রুয়ারি মাসের ৫ তারিখে পর্তুগালের মাদেইরা দ্বীপের ফুনচালে শহরে জন্মগ্রহণ করেন। ক্রিস্টিয়ানো রোলানদো পর্তুগাল জাতীয় ফুটবল দলের একজন সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ ফুটবল খেলোয়ার। এই পর্তুগিজ তারকার উচ্চতা ৬ ফুট ২ ইঞ্চি বিশ্বের দরবারে তিনি সি আর ৭ (CR7) নামে বাপক পরিচিত। বিশ্বের নামি দামি বিভিন্ন ক্লাবের হয়ে এ পর্যন্ত মোট ৯৭৩টি ম্যাচ খেলেন যার মধ্যে গোল করেন ৭২১ টি। ক্রিস্টিয়ানো রোলানদো ফুটবল ক্যারিয়ারের শুরুটা হয়েছিল পর্তুগালের একটি স্থানীয় ক্লাব এন্ডোরিনহায়। তার পর ১৯৯৭ সালে স্পোটিং সিপিতে যোগ দেওয়ার মাধ্যমে ফুটবল ক্যারিয়ারে অভিষেক ঘটে । এর পরে ক্লাবের হয়ে ২০২৩ সালে তিনি £১২.২৮ মিলিয়নের বিনিয়োগে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দেন । রোলানদো ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে হয়ে মোট ৩টি প্রিমিয়ার লিগ শিরোপা, ১ বার উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগ শিরোপা এবং ১বার উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে গোল্ডেন বল জিতেছেন। 

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে হয়ে রোনালদো দীর্ঘ ৬ বছর খেলেছেন এবং ৬ বছরে মোট ৩৪৬ ম্যাচ খেলেচ মোট গোল করেচেন ১৮৫টি । 

এর পরে স্পেনের জনপ্রিয় ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদের সাথে £৮0 মিলিয়নের বিনিময়ে সাথে চুক্তি বদ্ধ হয়ে যোগ দেন । রিয়াল মাদ্রিদতের জার্সিতে ২০১৮ সাল পর্যন্ত মোট ৪৩৮ টি ম্যাচ খেলেন এবং গোল করেন মোট ৪৫০টি। এর পর তিনি ২০১৮ সালে £100 মিলিয়নের বিনিময়ে জুভেন্টাসে  যোগ দেন এবং সেখানে তিনি ২টি সেরি আ শিরোপা, ২টি কোপা ইতালিয়া শিরোপা এবং সর্বশেষ ২ টি ইতালিয়ান সুপার কাপ জিতেছেন। তিনি জুভেন্টাসের হয়ে মোট ১৩৪ ম্যাচ খেলেন এবং গোল করেন ১০১টি। ২০২১ সালে আবার রোনালদো ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে ফিরে আসেন। 

বর্তমানে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো সৌদি প্রো লিগ ক্লাব আল নাসর সাথে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন। এবং সৌদি প্রো লিগ ক্লাব আল নাসর হয়ে এ পর্যন্ত ২০ টি ম্যাচে খেলতে নেমে মোট ২০ টি গোল করেছেন সেই সাথে ৭ টি এসিস্ট অর্জন করছেন।

২০২৩ সাল পর্যন্ত ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো পর্তুগালের জাতীয় ফুটবল দলের হয়ে মোট ২০১ টি ম্যাচ খেলেছেন এর মধ্যে গোল করেছেন ১২৩টি। যা পর্তুগালের জাতীয় দলের হয়ে রোলানদো বিশ্বের সর্বোচ্চ গোলদাতা । এছাড়াও রোনালদো এ পর্যন্ত ৫ টি ব্যালন ডি অর্জন করেছে (২০০৮, ২০১৩, ২০১৪, ২০১৬ এবং ২০১৭তে) সালে। মেসির পরে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো একমাত্র খেলোয়ার যিনি সর্বোচ্চ ব্যালন ডি জয় করেন। ফুটবলের এমন সব চমক পূর্ণ নৈপুন্যতাই কারনেই ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোকে সর্বকালের সেরা ফুটবলা হিসাবে বিবেচনা করা হয় বা বলা হয়।

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর গোল সংখ্যা!

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো নিজ দেশের দলের হয়ে প্রথম বিশ্বকাপ খেলেন ২০০৬ সালের জার্মান বিশ্বকাপে । প্রথম বিশ্বকাপের অভিষেক নেমে মোট ৬টি ম্যাচ খেলেন এবং গোল করেন ১টি। সেই বিশ্বকাপে পর্তুগাল সর্বোচ্চ সাফল্য পায় এবং সেই সাথে সেমিফানাল খেলার যোগ্যতা হাসিল করে। তার পর থেকে এ পর্যন্ত মোট ৫টি বিশ্বকাপ খেলেন এবং ২০১৮ সালের রাশিয়া বিশ্বকাপে ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো ব্যাক্তিগত ক্যারিয়ারে সর্বোচ্চ সাফল্য অর্জন করেন । ২০১৮ সালের রাশিয়া বিশ্বকাপে ৪ ম্যাচ খেলে ৪ টি গোল করেন এবং বিশ্বকাপের মোট ২০ ম্যাচ খেলে  ৮ টি গোল করেন।

সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকায় ক্রিস্টিয়ানো রোলানদোর গোল সাফল্যঃ

ক্রমিক নং

বিশ্বকাপ

ম্যাচ সংখা  গোল  অবস্থান

২০০৬ সাল জার্মান বিশ্বকাপ 

৪র্থ

২০১০ সাউথ আফ্রিকা বিশ্বকাপ 

১১তম

২০১৪ সাল ব্রাজিল বিশ্বকাপ 

১৮তম

২০১৮ সাল রাশিয়া বিশ্বকাপ 

১৩তম

২০২২ সাল কাতার বিশ্বকাপ

৮তম

মোট বিশ্বকাপ =৫

ম্যাচ=২০টি

৮টি

সর্বকালের সেরা ফুটবলার পেলে !

সর্বকালের সেরা স্ট্রাইকার কে বা সর্বকালের সেরা খেলোয়াড় কে এই প্রশ্ন যদি কারো মনে জাগ্রত হয় তাইলে অবশ্যই পেলে নামটা চলে আসে ।পেলে ছিলেন একজন জনপ্রিয় ব্রাজিলীয় পেশাদার ফুটবলার । তিনি বিশ্বের সর্বকালের শ্রেষ্ঠ ফুটবলার এর মধ্যে একজন। পেলের প্রকিত নাম এডসন অরান্তেস দো নাসিমেন্তো সংক্ষেপে পেলে নামে পরিচিত। তিনি ব্রাজিলের ত্রেস কোরাসয়ে ১৯৪০ সালের অক্টোবরের ২৩ তারিখে জন্ম গ্রহন করেন। জীবনের প্রথম ম্যাচ খেলতে নামেন ১৯৫৭ সালে ৭ জুলাই আর্জেন্টিনার বিপক্ষে। ক্যারিয়ারের প্রথম ম্যাচে ২-১ গোলে আর্জেন্টিনার সাথে হারলেও সেদিন সর্বকনিষ্ঠ গোলদাতা হিসাবে স্থান করে নেন পেলে। ব্রাজিল দলের ফরোয়ার্ড মিডফিল্ডার আটাকিং হিসাবে খেলেন। বাজিলের জাতীয় দলের হয়ে মোট ৯২ টি ম্যাচ খেলেন যার মধ্যে গোল করেন ৭৭টি । তিনি তার ক্যারিয়ারে ১০০০টির ও বেশি গোল করে বিশ্ব রের্কড গড়েছেন। পেলে তার ফুটবল ক্যারিয়ারে মোট ১৩৬৩ টি ম্যাচ খেলেন এবং এর মধ্যে গল করেন ১২৮১টি। তিনি ১৯৯৯ সালে আর্ন্তজাতিক অলিম্পিক অলিম্পিক কমিটি থেকে শতাব্দীর ক্রীড়াবিদ নির্বাচিত হন।

পেলের গোল সংখ্যা!

পেলে তার ফুটবল ক্যারিয়ারে মোট ৪টি বিশ্বকাপের অংশগ্রহন করেন বা খেলেন। ৪ বিশ্বকাপের আসরে মোট ম্যাচ খেলান ১৪ টি এবং এর মধ্যে গোল করেন ১২টি। বিশ্বকাপ ফুটবলের ইতিহাসে পেলেই একমাত্র প্লেয়ার যিনি একাই ৩ টি বিশ্বকাপের স্বাদ নিয়েছেন। পেলের এসব অসামান্য অব্দানের জন্য পেলে কে সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বা সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকা তে প্রথম স্থানে রাখা হয়েছে।

সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকায় পেলের সাফল্য

ক্রমিক নং

বিশ্বকাপ 

ম্যাচ সংখা 

গোল 

অবস্থান

১৯৫৮ সাল সুইডেন বিশ্বকাপ

৪টি

৬টি

চ্যাম্পিয়ান

১৯৬২সাল চিলি বিশ্বকাপ

২ টি 

১টি 

চ্যাম্পিয়ান

১৯৬৬ সাল ইংল্যান্ড বিশ্বকাপ

২টি

১টি

১১তম

১৯৭০ সাল মেক্সিকো বিশ্বকাপ

৬টি

৪টি

চ্যাম্পিয়ান

মোট বিশ্বকাপ =৪ ম্যাচ=১৪টি ১২টি ৩বার চ্যাম্পিয়ান

সর্বকালের সেরা ফুটবলার ডিয়েগো ম্যারাডোনা!

সর্বকালের সেরা খেলোয়াড় কে বা সর্বকালের সেরা স্ট্রাইকার কে এই প্রশ্ন যদি কারো মনে জাগ্রত হয় তাইলে অবশ্যই ডিয়েগো ম্যারাডোনা নামটা চলে আসে। ডিয়েগো ম্যারাডোনা একজন আর্জেন্টাইন জনপ্রিয় বিশ্বসেরা ফুটবলার। তিনি আর্জেন্টিনার শহর লানুসে ৩০ শে অক্টোবার ১৯৬০ সালে জন্ম গ্রহন করেন । তিনি ছিলেন সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ একজন আর্জেন্টাইন পেশাদার ফুটবলার ৫ ফুট ৫ ইঞ্চির এর ফুটবলার কে ফুটবলের জগতে ক্ষুদে জাদুকর বলা হয়ে থাকে। ১৯৭৭ সালের ফেব্রুয়ারি মাসের ২৭ তারিখে বয়সের ভিত্তিতে হাঙ্গেরির বিপক্ষের খেলার মাধ্যেমে তার আর্ন্তজাতিক ফুটবল ক্যারিয়ারে অভিষেক ঘটে। তার ফুটবল ক্যারিয়ারে ১৯৭৭ সাল থেকে ১৯৯৪ সাল পর্যন্ত আর্জেন্টিনার জার্সিতে সর্বমোট ৯১ টি ম্যাচ খেলে এর মধ্যে গোল করেন ৩৪টি সেই সাথে আর্জেন্টিনা দল করে ৫ম স্থানে। তাছাও ডিয়েগো ম্যারাডোনা তার ক্যারিয়ারে বিভিন্ন সময়ে ক্লাবের হয়ে ৪৯১টি ম্যাচ খেলেন এবং এর মধ্যে গোল করেছেন ২৫৯ টি।

ডিয়েগো ম্যারাডোনা গোল সংখ্যা !

ডিয়েগো ম্যারাডোনা নিজ দেশের দলের হয়ে প্রথম বিশ্বকাপ খেলেন ১৯৮২ সালে। প্রথম বিশ্বকাপের আসরে খেলতে নেমে তিনি ৫টি ম্যাচ খেলেন এবং গোল করেন ২টি। এর পরে ১৯৮৬ সালে মেক্সিকো বিশ্বকাপে ৭ ম্যাচ খেলেন এবং গোল করেন ৫টি। সেই বছর আর্জেন্টিনাকে বিশ্বকাপ জিতাতে অসামান্য অবদান রাখেন এই ক্ষুদে জাদুকার । এসব দিক থেকে বিবেচনা করে সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকায় রাখা হয়েছে ।

সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকায় ডিয়েগো ম্যারাডোনা গোল সংখ্যা !

ক্রমিক নং

বিশ্বকাপ

ম্যাচ সংখা  গোল 

অবস্থান

১৯৮২ সাল স্পেন বিশ্বকাপ

৫টি ২টি

১০তম

১৯৮৬ সাল মেক্সিকো বিশ্বকাপ

৭ টি 

৫টি 

চ্যাম্পিয়ান

১৯৯০ সাল ইতালি বিশ্বকাপ

৭টি

০টি

রার্নাস আপ

১৯৯৪ সাল যুক্তরাষ্ট্র বিশ্বকাপ

২টি

১টি

১০তম

মোট বিশ্বকাপ =৫ ম্যাচ=২১টি ৮টি ১বার চ্যাম্পিয়ান

সর্বকালের সেরা ফুটবলার জিনেদিন জিদান !

সর্বকালের সেরা খেলোয়াড় কে বা সর্বকালের সেরা স্ট্রাইকার কে এই প্রশ্ন যদি কারো মনে জাগ্রত হয় তাইলে অবশ্যই জিনেদিন জিদান নামটা চলে আসে। জিনেদিন জিদান ফ্রান্সের শহর মার্সেইতে ১৯৭২ সালে ২৩ জুন জন্ম গ্রহন করেন। তার পুরো নাম জিনেদিন ইয়াজিদ জদান । তিনি সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ খেলোয়ার হিসাবে পরিচিত। ফরাসী এই ফুটবলার মুসলিম পরিবারে জন্ম গ্রহন করেন এই মিড ফিল্ডার বহুবার বির্তকীত হলেও ফুটবলে তার সাফল্যের জন্য বিশ্ব তাকে সর্বকালের সর্বশেরা ফুটবলারের তালিকায় রাখা হয়। 

মাত্র ১০ বছর বয়সে ফ্রান্সের ফুটবল ক্লাব ফোরেস্তারার সাথে ১৯৮২ সালে চিক্তিবদ্ধের মাধ্যমে তার ফুটবল ক্যারিয়ারের সুচনা হয়। তার এই ক্লাব ক্যারিয়ারে একজন মিড ফিল্ডার হয়েও ৫০৬ ম্যাচ খেলে ৯৫ টি গোল করে ফুটবল জগতকে তাক লাগিয়ে দিয়েছে। শুধু তাই নয় মেসি রোলানদোর পরে জিদান ১৯৯৮ সালে ব্যালেন ডি জয়লাভ করেন । ফুটবল জগতে এক জন মিড ফিল্ডার হয়েও তার এসব অর্জনের কারনে তাকে বিশ্ব সেরা সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকায় রাখা হয়েছে।

সর্বকালের সেরা ফুটবলার রোনালদিনহো !

সর্বকালের সেরা খেলোয়াড় কে বা সর্বকালের সেরা স্ট্রাইকার কে এই প্রশ্ন যদি কারো মনে জাগ্রত হয় তাইলে অবশ্যই রোনালদিনহো নামটা চলে আসে। রোনালদিনহো একজন ব্রাজিলিয় ফুটবল জগতের একজন পেশাদার ফুটবলার এবং তিনি একজন আক্রমন ভাগের খেলোয়ার হিসাবেই খেলেন । ১৯৮০ সালে ব্রাজিল শহর পোর্তো আলেগ্রেতে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি তার ফুটবল ক্যারিয়ারের বেশি ভাগ সময়েই জনপ্রিয় ক্লাব বার্সোলোনার ও মিলানের হয়ে খেলেছেন। এছাড়াও তিনি ২০০২ সালে বিশ্বকাপ জয়ী ব্রাজিল দলের সদস্য ছিলেন । তিনি ব্রাজিল দলের হয়ে ৬৭ টিগোল করেছে এবং তার ফুটবল ক্যারিয়ারে তিনি মোট ৩০০ টির ও বেশি গোল করেছেন। এসব দিক থেকে তাকে বিবেচনা করে সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকা  হিসেবে বিবেচিত হন।

 

1 thought on “সর্বকালের সেরা ফুটবলারের তালিকা ২০২৩ কে আছে তা জানুন! ”

Leave a Comment